মঙ্গলবার, ০৩ অগাস্ট ২০২১, ১১:০৪ অপরাহ্ন

বিজ্ঞপ্তি:
বিশেষ সতর্কীকরন - "নতুন বাজার পত্রিকায়" প্রকাশিত সকল সংবাদের দায়ভার সম্পুর্ন প্রতিনিধি ও লেখকের। আমরা আমাদের প্রতিনিধি ও লেখকের চিন্তা মতামতের প্রতি সম্পুর্ন শ্রদ্ধাশীল। অনেক সময় প্রকাশিত সংবাদের সাথে মাধ্যমটির সম্পাদকীয় নীতির মিল নাও থাকতে পারে। তাই যেকোনো প্রকাশিত সংবাদের জন্য অত্র পত্রিকা দায়ী নহে। নতুন বাজার পত্রিকা- বাংলাদেশের সমস্ত জেলা, উপজেলা, ক্যাম্পাস ও প্রবাসে প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে! বিস্তারিত: ০১৭১২৯০৪৫২৬/০১৯১১১৬১৩৯৩
সংবাদ শিরোনাম :
ঠাকুরগাঁওয়ের পীরগঞ্জে করোনা প্রতিরোধ বুথ উদ্বোধন। মাস্ক ও করোনা নিবন্ধন ফরম বিতরন করলেন কারা পরিদর্শক লিটন স্বামী স্ত্রী ছেলে আলাদা আলাদা মাদক মামলায় গ্রেফতার। নাগেশ্বরীতে মসজিদে ইমামের ভুল ধরতে গিয়ে সমাজচুত্য ৭পরিবার আশুলিয়ার কাঠগড়ায় ইলিম হত্যার রহস্য কি-পুলিশ প্রশাসন নিরব ভুমিকা! সাংবাদিক ও লেখকদের জন্য ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন-অপপ্রয়োগ বন্ধে পরিবর্তন দরকার জাতীয় পরিচয়পত্র-জন্মনিবন্ধন সেবায় ভুক্তভোগীদের হয়রানির অভিযোগ! নওগাঁয় গত ২৪ ঘন্টায় আরও ২ ব্যক্তির মৃত্যু ঃ আক্রান্ত ৩৭ মান্দায় অসহায় পরিবারের উপর হামলা ছিনতাই ও শ্লীলতাহানীর অভিযোগ পাইকগাছায় সড়ক দূর্ঘটনায় নিহত-১ আহত -২
বরিশাল বিভাগে নতুন ১৬ জনের করোনা আক্রান্ত শনাক্ত

বরিশাল বিভাগে নতুন ১৬ জনের করোনা আক্রান্ত শনাক্ত

বরিশালঃ

বরিশাল বিভাগের ছয় জেলায় এ পর্যন্ত মোট ৮ হাজার ৩৭৫ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে বলে জানিয়েছে স্বাস্থ্য বিভাগ। এছাড়া সুস্থ হয়েছেন ৭ হাজার ৬৮৪ জন। মৃত্যু হয়েছে ১৭১ জনের।

বিভাগীয় স্বাস্থ্য পরিচালকের কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, গত ২৪ ঘণ্টায় বরিশাল বিভাগের ছয় জেলায় ১৬ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। আর গেল ২৪ ঘণ্টায় বিভাগের ছয় জেলায় ২৪ জন রোগী সুস্থ হয়েছেন।

এদিকে করোনার সংক্রমণ প্রতিরোধে বিদেশি নাগরিকসহ ভিন্ন জেলা (সংক্রমিত) থেকে আসা ব্যক্তিদের কোয়ারেন্টিনে রাখার কার্যক্রম চলমান রয়েছে। ফলে গত ১০ মার্চ থেকে এ পর্যন্ত বরিশাল সিটি করপোরেশনসহ বিভাগের ছয় জেলায় মোট ৩৬ হাজার ৯৫৭ জনকে কোয়ারেন্টিনে পাঠানো হয়। যারমধ্যে হোম কোয়ারেন্টিনে পাঠানো হয় ২৮ হাজার ৬৮৭ জনকে। এরমধ্যে ২৭ হাজার ৩১০ জনকে হোম কোয়ারেন্টিন থেকে ছাড়পত্র দেওয়া হয়েছে। এছাড়া বিভাগের বিভিন্ন জেলায় হাসপাতালে (প্রতিষ্ঠানিক) কোয়ারেন্টিনে ৮ হাজার ২৭০ জন রয়েছেন। এ পর্যন্ত ৭ হাজার ৯৮৯ জনকে ছাড়পত্র দেওয়া হয়েছে।

এর বাইরে শের-ই-বাংলা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালসহ বিভাগের বিভিন্ন সরকারি হাসপাতালে আইসোলেশনে চিকিৎসা পাওয়া রোগীর সংখ্যা ৩ হাজার ১১৩ জন। এরইমধ্যে ২ হাজার ৬৫২ জনকে ছাড়পত্রও দেওয়া হয়েছে।

এদিকে বিভাগীয় স্বাস্থ্য পরিচালক ডা. বাসুদেব কুমার দাস জানিয়েছেন, বিভাগের মধ্যে এ পর্যন্ত বরিশাল জেলায় ৩ হাজার ৫২৯ জন, পটুয়াখালীতে ১ হাজার ৪২৮ জন, ভোলায় ৭২৭ জন, পিরোজপুরে ১ হাজার ৮০ জন, বরগুনায় ৯১২ জন ও ঝালকাঠিতে ৬৯৯ জনের করোনা পজিটিভ শনাক্ত হয়েছে। যারমধ্যে গোটা বিভাগে ৭ হাজার ৬৮৪ জন করোনা পজিটিভ রোগী সুস্থ হয়েছেন। যাদের এরইমধ্যে ছাড়পত্র দেওয়া হয়েছে।

এছাড়া মৃত্যু হওয়া করোনা পজিটিভ ১৭১ জনের মধ্যে বরিশাল নগরসহ জেলায় ৬৮ জন, পটুয়াখালীতে ৩৭ জন, ঝালকাঠিতে ১৬ জন, বরগুনায় ২০ জন, পিরোজপুরে ২৪ জন ও ভোলায় ৬ জন রয়েছেন।##

Please Share This Post in Your Social Media






© natunbazar24.net কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Design & Developed BY AMS IT BD