বুধবার, ১৬ জুন ২০২১, ০৪:১৩ পূর্বাহ্ন

বিজ্ঞপ্তি:
বিশেষ সতর্কীকরন - "নতুন বাজার পত্রিকায়" প্রকাশিত সকল সংবাদের দায়ভার সম্পুর্ন প্রতিনিধি ও লেখকের। আমরা আমাদের প্রতিনিধি ও লেখকের চিন্তা মতামতের প্রতি সম্পুর্ন শ্রদ্ধাশীল। অনেক সময় প্রকাশিত সংবাদের সাথে মাধ্যমটির সম্পাদকীয় নীতির মিল নাও থাকতে পারে। তাই যেকোনো প্রকাশিত সংবাদের জন্য অত্র পত্রিকা দায়ী নহে। নতুন বাজার পত্রিকা- বাংলাদেশের সমস্ত জেলা, উপজেলা, ক্যাম্পাস ও প্রবাসে প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে! বিস্তারিত: ০১৭১২৯০৪৫২৬/০১৯১১১৬১৩৯৩
সংবাদ শিরোনাম :
নড়াইলে ১৪৫ পিস ইয়াবাসহ গ্রেফতার ১ কেশবপুরে সাংবাদিকদের সাথে নবাগত এএসপি(মণিরামপুর সার্কেল) মামুনের মতবিনিময় সভা মুন্সিগঞ্জ জেলার শ্রেষ্ট ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম‌্যান হাজী মোঃ বাচ্চু শেখ। পাইকগাছায় এক পুলিশ কর্মকর্তার ভাইয়ের দাপটে অতিষ্ঠ এলাকাবাসী ইউএনও বরাবর অভিযোগ পাইকগাছা প্রেসক্লাব উন্নয়নে এমপি’র এক লাখ টাকা অনুদান ; প্রেসক্লাবের পক্ষ থেকে অভিনন্দন পাইকগাছায় স্বাস্থ্য শিক্ষা সেবা প্যাকেজ কার্যক্রমের উদ্বোধন শার্শার বাগআঁচড়ায় করোনা ঝুকি থাকলেও কেউ মানছেন না স্বাস্থ্য বিধি কন্ঠশিল্পী মাছুম তালুকদারের “বাবা আমার বাবা” পটিয়ার ইদ্রিস চৌধুরী কোটিপতি হওয়ার রহস্য চুনারুঘাটে জনপ্রতিনিধি ও গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গের সাথে মতবিনিময় করেন জেলা প্রশাসক ইশরাত জাহান
ব্রাহ্মণপাড়া উপজেলা পরিষদ উপনির্বাচনে প্রার্থীর আলোচনায় আছেন যারা

ব্রাহ্মণপাড়া উপজেলা পরিষদ উপনির্বাচনে প্রার্থীর আলোচনায় আছেন যারা

কুমিল্লা জেলা প্রতিনিধি : মোঃ তরিকুল ইসলাম তরুন।।
কুমিল্লার ব্রাহ্মণপাড়া উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান পদে উপনির্বাচনের তফছিল ঘোষণা করা হয়েছে। ঘোষিত তফছিল অনুযায়ী আগামী ১০ ডিসেম্বর ভোটের দিন নির্ধারন করা হয়েছে।এতে মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ তারিখ ১৫ নভেম্বর, মনোনয়নপত্র বাছাইয়ের তারিখ ১৭ নভেম্বর, প্রার্থীতা প্রত্যাহার ২৩ নভেম্বর। ব্রাহ্মণপাড়া উপজেলা পরিষদ উপ-নির্বাচনকে ঘিরে মনোনয়ন দৌঁড়ের তোড়জোর চলছে। নির্বাচনে বিজয়ী হয়ে এক বছর চার মাস পর মৃত্যুবরণ করেন উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আলহাজ্ব মুহাম্মদ আবু তাহের। মৃত্যুর পর থেকেই আওয়ামীলীগ ও বিএনপির প্রার্থীরা মনোনয়নের জন্য দৌঁড়ঝাপ শুরু করেছেন। উপজেলায় আওয়ামীলীগ ও বিএনপির একাধিক প্রার্থী থাকায় নির্বাচনে যোগ্য প্রার্থী বাছাই করা একটি বড় ফ্যক্টর বলে মনে করছেন ভোটার ও তৃণমূল নেতাকর্মীরা। যোগ্য প্রার্থী না হলে যে কোন দলেই ঘটতে পারে পরাজয়।
উপজেলা পরিষদে উপনির্বাচন হলেও দীর্ঘ মেয়াদী হওয়ায় নির্বাচনটি আওয়ামীলীগ ও বিএনপির কাছে অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। আলহাজ্ব মো. আবু তাহের মারা যাবার পরই নির্বাচনকে ঘিরে দুই দলেই একাধিক প্রার্থী তাদের স্ব-স্ব কাজ চালিয়ে আসছেন। এরই ধারাবাহিকতায় উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি সাবেক দুই বারের উপজেলা চেয়ারম্যান আলহাজ্ব মোঃ জাহাঙ্গীর খান চৌধুরী, উপজেলা আওয়ামিলীগের সাধারণ সম্পাদক সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী এড. আবদুল বারী, সাংগঠনিক সম্পাদক ও ভারপ্রাপ্ত উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আমিনুল ইসলাম সুজন দলীয় প্রতিক নৌকা পাবার জন্য চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন। অপর দিকে বিএনপি তাদের প্রার্থীকে উপজেলা পরিষদ উপনির্বাচনে মনোনীত করতে একাধিকবার বৈঠক করছেন। বিএনপির প্রার্থী হিসেবে উপজেলা বিএনপির সমর্থিত সাধারন সম্পাদক সরকার জহিরুল হক মিঠুন ও শওকত মাহমুদ সমর্থিত সাবেক সাধারণ সম্পাদক মহসীন কবীর সরকারের নাম আলোচনায় রয়েছে।তাদের দু-জনই দলীয় প্রতিক ধানের শীষ পেতে কেন্দ্রের সাথে যোগাযোগ চালিয়ে যাচ্ছেন। এছাড়া প্রয়াত আবু তাহেরের ছোট ভাই উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক অর্থ সম্পাদক আলহাজ্ব মোঃ আবু জাহের এলাকার বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কর্মকান্ডে ব্যাক্তিগত অর্থায়নে কাজ করে যাচ্ছেন। আওয়ামীলীগ থেকে তিনি মনোনয়ন না পেলে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে নির্বাচন করার সম্ভাবনা আছে বলে জানা যায়। সব মিলিয়ে নির্বাচন যতই ঘনিয়ে আসছে জনগনের মাঝে ততবেশী উৎসাহ উদ্দিপনা দেখা যাচ্ছে।এ ব্যাপারে স্থানীয় রা জানান ভোটার রা নির্ভয়ে ভোট কেন্দ্রে এসে তাদের কাঙ্খিত প্রার্থীকে ভোট প্রদান করতে পারলে সকল হিসাব নিকাশ পাল্টে যেতে পাড়ে।গত নির্বাচনটি ছিল নির্পক্ষ নির্বাচন।আমরা কোন পেশী শক্তি দেখতে চাই না, চাই নিরপেক্ষ একটি নির্বাচন।

Please Share This Post in Your Social Media






© natunbazar24.net কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Design & Developed BY AMS IT BD