শনিবার, ৩১ জুলাই ২০২১, ০৯:৩৮ পূর্বাহ্ন

বিজ্ঞপ্তি:
বিশেষ সতর্কীকরন - "নতুন বাজার পত্রিকায়" প্রকাশিত সকল সংবাদের দায়ভার সম্পুর্ন প্রতিনিধি ও লেখকের। আমরা আমাদের প্রতিনিধি ও লেখকের চিন্তা মতামতের প্রতি সম্পুর্ন শ্রদ্ধাশীল। অনেক সময় প্রকাশিত সংবাদের সাথে মাধ্যমটির সম্পাদকীয় নীতির মিল নাও থাকতে পারে। তাই যেকোনো প্রকাশিত সংবাদের জন্য অত্র পত্রিকা দায়ী নহে। নতুন বাজার পত্রিকা- বাংলাদেশের সমস্ত জেলা, উপজেলা, ক্যাম্পাস ও প্রবাসে প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে! বিস্তারিত: ০১৭১২৯০৪৫২৬/০১৯১১১৬১৩৯৩
ডিমলায় নাউতারা নদী ভাঙ্গনে হুমকির মূখে বাড়িঘর ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান

ডিমলায় নাউতারা নদী ভাঙ্গনে হুমকির মূখে বাড়িঘর ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান

ডিমলা (নীলফামারী) প্রতিনিধিঃ নীলফামারী ডিমলা উপজেলা ৮নং ঝুনাগাছ চাপানী ইউনিয়নে কাকড়া মুনাকাসা গ্রামের পাশ দিয়ে বয়ে গেছে নাউতারা নদী। সেই নদী ভাংতে ভাংতে এখন বসতবাড়ি ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের কাছে এসেছে। যার ফলে ঐ এলাকার প্রায় ৩ শত পরিবার এবং তার একটু উত্তরে অবস্থিত ১টি মাধ্যমিক বিদ্যালয়, ১টি সপ্রাবি, ১টি খেলার মাঠ, ১টি শ্মশান ঘাট ও ১টি দূর্গা মন্দির নদীগর্ভে বিলিন হওয়ার হুমকির মূখে পরেছে। এরই মধ্যে কয়েকদিনের টানা বর্ষণে নদী বেসামাল হয়ে পরেছে। বার বার বলার পরেও এখনো পর্যন্ত ভাঙ্গন রোধে তেমন কোন ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়নি। এমনটি জানালেন ঐ এলাকার প্রায় ৩ শত ভুক্তভোগী অসহায় পরিবারের মানুষ জন।

এলাকা বাসি আরো জানান, এরই মধ্যে যে ২শত জিও ব্যাগ পাঠানো হয়েছে তা দিয়ে ভাঙ্গন রোধ করা সম্ভব নয়। তাদের প্রাণের দাবি যেভাবেই হোক কিছু একটা করে নদী ভাঙ্গন থেকে আমাদেরকে বাঁচান।

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে ৮নং ঝুনাগাছ চাপানী ইউপি চেয়ারম্যান আমিনুর রহমান বলেন, বিষয়টি নিয়ে ডালিয়া পানি উন্নয়ন বোর্ড প্রকৌশলী বরাবরে আবেদন করা হয়েছে এবং এর প্রতিকার চাওয়ার ব্যাপারে একাধিক বার অবগত করা হয়েছে ও তা অব্যহত রয়েছে।

চলমান সমস্যা নিরসনের ব্যাপারে জানতে চাইলে ডালিয়া পওর বিভাগ প্রকৌশলী রবিউল ইসলাম বলেন, নাউতারা নদী ভাঙ্গন রোধে ২ শত জিও ব্যাগ উপজেলা নির্বাহী অফিসার বরাবরে দেয়া হয়েছে। এছাড়াও স্থানীয় প্রতিনিধি সহ সকলকে এগিয়ে আসতে হবে।

এব্যাপারে আরো কথা হয় বাংলাদেশ পানি উন্নয়ন বোর্ড (রংপুর পওর সার্কেল-২) তত্বাবধায়ক প্রকৌশলী মাহাবুব রহমান এর সাথে। তিনি বলেন, যে ২শত জিও ব্যাগ নির্বাহী অফিসারের মাধ্যমে দেওয়া হয়েছে তাতে যদি সংকট দেখা দেয়, তাহলে ডালিয়া পানি উন্নয়ন বোর্ড কে উক্ত স্থান পরিদর্শ করার জন্য বলা হবে। যদিও জরুরী আপদ কালীন সময় পার হয়েছে তার পরেও যদি নদী শাসন করতে হয় তাহলে উর্ধতন কর্মকর্তাগণকে জানানো হবে।

মোঃ শাহিনুর রহমান
ডিমলা (নীলফামারী) প্রতিনিধি।

Please Share This Post in Your Social Media






© natunbazar24.net কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Design & Developed BY AMS IT BD